মুরগির স্বাদে পরিবর্তন আনতে ট্রাই করুন ‘চিকেন চাপ’

amitumi_chicken chop

রোজ রোজ মুরগির একঘেয়েমি স্বাদ আর ভাল লাগেনা? তাহলে ট্রাই করুন এই মুখরোচক রান্না। রেসিপি দিয়েছেন ফারহিন রহমান ।

উপকরণ:

মুরগির পায়ের অংশ ২টি। আদাবাটা দেড় চা-চামচ। রসুনবাটা ১ চা-চামচ। পেঁয়াজবাটা আধা কাপ।

মরিচগুঁড়া ১ চা-চামচ বা স্বাদ মতো। হলুদগুঁড়া আধা চা-চামচ। ধনে ও জিরা গুঁড়া ১ চা-চামচ করে। গরম মসলাগুঁড়া আধা চা-চামচ। জায়ফল-জয়ত্রিগুঁড়া ১/৪ চা-চামচ। বেসন ৩ টেবিল চামচ (হালকা টেলে নেওয়া)। লেবুর রস ১ টেবিল-চামচ। টক দই ৩,৪ টেবিল-চামচ। এলাচ ২টি। দারুচিনি ১টি। তেজপাতা ১টি। কেওড়ার জল ১ টেবিল-চামচ। লবণ স্বাদ মতো। জাফরান এক চিমটি (অল্প তরলদুধে ভেজানো)। তেল ও ঘি আধা কাপ বা পরিমাণ মতো। চিনি সামান্য (ইচ্ছা)। কাজু বাদামবাটা দেড় চা-চামচ। কাঁচামরিচ বাটা ২,৩টি।

পদ্ধতি:

মুরগির মাংস কাঁটাচামচ দিয়ে কেঁচে, ছুরি দিয়ে উপর থেকে হালকা কেটে দিতে হবে যেন মসলাগুলো ভালোভাবে ভেতরে ঢোকেI

এবার একটি বাটিতে আদা-রসুনবাটা, পেঁয়াজবাটা, হলুদগুঁড়া, মরিচগুঁড়া, ধনে-জিরাগুঁড়া, জায়ফল-জয়ত্রিগুঁড়া, কাঁচামরিচবাটা, বেসন, জাফরান ভেজানো দুধ, লবণ, টক দই, অল্প কেওড়ার জল ও লেবুর রস একসঙ্গে মিশিয়ে নিন।

মাংস এই মিশ্রণে দিয়ে ভালো করে মাখিয়ে তিন থেকে চার ঘণ্টা বা সারারাত সাধারণ তাপমাত্রার ফ্রিজে রেখে মেরিনেইট করতে হবেI

ননস্টিক প্যানে ঘি আর তেল গরম করে এলাচ, দারুচিনি, তেজপাতা ফোঁড়ন দিন। মুরগির মাংস মসলা থেকে উঠিয়ে হালকা আঁচে ভাজে নিন।

এর মধ্যে মসলার মিশ্রন দিয়ে অল্প আঁচে অনবরত নেড়ে রান্না করুনI প্রয়োজনে অল্প পানি দিয়ে ঢেকে দিতে হবেI রান্না শেষে বাকি কেওড়া জল, বাদামবাটা ও চিনি দিয়ে মাখা মাখা করে নামিয়ে নিন।

facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail